Header Ads

parkview
  • সর্বশেষ আপডেট

    রাষ্ট্রীয় মর্যাদায় বীর মুক্তিযোদ্ধা আবদুল বাতেনের দাফন সম্পন্ন।

    আকবর শাহ থানার সংবাদ

    চট্টগ্রাম জেলার সন্দ্বীপ  উপজেলার হারামিয়া গ্রামের  বীর মুক্তিযোদ্ধা ও সাবেক সোনালি ব্যাংকের ম্যানেজার  আবদুল বাতেনের  দাফন রাষ্ট্রীয় মর্যাদায় কৈবল্যধাম আবাসিক এলাকায় সম্পন্ন হয়েছে। মঙ্গলবার  সকাল ৬টার দিকে নগরীর হালিশহরস্থ নিজ বাসভবনে  তিনি শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন (ইন্নালিল্লাহি ওয়া ইন্নালিল্ললাহি রাজিউন )। তিনি একই গ্রামের  মৃত  আবদুল ছাত্তারের পুত্র।

    মঙ্গলবার দুপুরে হালিশহর খানবাড়ির সামনে বাইতুশ শরফ মসজিদ প্রাঙ্গণে প্রথম জানাজা ও   বিকেল সাড়ে পাঁচটায় কৈবল্যধাম বঙ্গবন্ধু উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে দিতীয় জানাজা অনুষ্ঠিত হয়।  এসময় জেলা  প্রশাসনের পক্ষ থেকে সহকারী  কমিশনার ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট  রাষ্ট্রীয় সম্মান গার্ড অব অনার প্রদান করেন এই বীর মুক্তিযোদ্ধাকে। এরপর জানাজা নামাজ শেষে কৈবল্যধাম আবাসিক কবরস্থানে তাকে দাফন করা হয়।

    জানা যায়, তিনি দীর্ঘদিন ধরে শ্বাসকষ্ট ও বার্ধক্যজনিত রোগে ভুগছিলেন। তার মৃত্যুতে মহানগর  ও উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদ এবং সকল রণাঙ্গনের বীর মুক্তিযোদ্ধাদের মাঝে শোকের ছায়া নেমে এসেছে। মৃত্যুকালে তিনি দুই ছেলে ও এক মেয়েসহ অসংখ্য অনুরাগী রেখে গেছেন।

    ৯নম্বর উত্তর পাহাড়তলি ওয়ার্ড কাউন্সিলর জহুরুল আলম জসিম বলেন, ‘আজ আমরা একজন প্রকৃত দেশপ্রেমিককে হারিয়েছি। এ বীর মুক্তিযোদ্ধার মৃত্যুতে ৯নং ওয়ার্ডের  পক্ষ থেকে গভীর শোক ও সমবেদনা জানাচ্ছি।

    বীর মুক্তিযোদ্ধা আবদুল বাতেনে পুত্র ৯নম্বর ওয়ার্ড মুক্তিযোদ্ধা প্রজন্মলীগ সভাপতি ও যুবলীগ নেতা বেলাল উদ্দিন জুয়েল বলেন আমার বাবা বীর মুক্তিযোদ্ধা আবদুল বাতেন সারাটা জীবন দেশের কল্যাণে কাজ করেছেন, উনার মাগফেরাত কামনায় দেশবাসীর কাছে দোয়া ছেয়েছেন তিনি।

    এ বীর মুক্তিযোদ্ধার মৃত্যুতে গভীর শোক ও সমবেদনা জানিয়েছেন চট্টগ্রাম মহানগর  মুক্তিযোদ্ধা সংসদ, জেলা  মুক্তিযোদ্ধা সংসদ, উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদ, ইউনিয়ন মুক্তিযোদ্ধা সংসদ কমাণ্ড।


    প্রকাশিত: মঙ্গলবার, ১৬ জুন, ২০২০

    Post Top Ad