• সর্বশেষ আপডেট

    এরশাদের জীবনী নিয়ে সিনেমা বানাতে চান বিদিশা

    শেখ মুজিবুর রহমানের জীবনী নিয়ে নির্মিত ‘মুজিব: একটি জাতির রূপকার’ দেখে মুগ্ধ বিদিশা
     

    সাবেক সেনাপ্রধান, জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান এবং প্রয়াত রাষ্ট্রপতি হুসেইন মুহাম্মদ এরশাদের জীবনের গুরুত্বপূর্ণ অংশ তুলে সিনেমা বানাতে চান তার সাবেক স্ত্রী বিদিশা এরশাদ।চ্যানেল আই’র সর্বশেষ খবর ও বিনোদন গুগল নিউজেসম্প্রতি একটি বেসরকারি টেলিভিশনে দেয়া সাক্ষাৎকারে বিদিশা তার এই ইচ্ছের কথা জানিয়ে বলেন, আমাদের দেশের ডিরেক্টর এবং আর্টিস্টরা এখন অনেক ক্রিয়েটিভ। তারা সুন্দর সুন্দর কাজ উপহার দিচ্ছেন। আমার মনে হয়, হুসেইন মুহাম্মদ এরশাদকে নিয়ে যদি বায়োপিক করা যায়, তাহলে তার সম্পর্কে দেশের মানুষ অনেককিছু জানতে পারবে। আমি আশাবাদী দেশকে একটি ভালো মুভি উপহার দিতে পারবো।বিদিশা বলেন, ‘শত্রুর সঙ্গে বসবাস’ নামে একটি বই লিখেছিলাম। এই বইটি নিয়ে মোস্তফা সরয়ার ফারুকী কাজ করতে চেয়েছিলেন। বইটি আমার বায়োগ্রাফি। এতে ডেফিনেটলি বিশাল জায়গা জুড়ে আমার জীবনে এরশাদ সাহেব আছে।এসময় বিদিশা বলেন, ‘আমি চিন্তাভাবনা করছি হুসেইন মুহাম্মদ এরশাদের একটি বায়োপিক করলে কেমন হয়!’সাক্ষাৎকারে বিদিশা জানান, সম্প্রতি মুক্তি পাওয়া জাতির জনক শেখ মুজিবুর রহমানের জীবনী নিয়ে নির্মিত ‘মুজিব: একটি জাতির রূপকার’ দেখে তিনি মুগ্ধ হয়েছেন।বিদিশা বলেন, শেখ মুজিবুর রহমানকে নিয়ে যে বায়োপিক হয়েছে সেটা দেখার মতো হয়েছে। আমি রীতিমতো থান্ডার হয়েছি। যারা এখানে অভিনয় করেছেন তারা প্রাণপণ দিয়ে অভিনয় করেছে। এই সিনেমা না দেখলে বাঙালি বুঝবে না শেখ হাসিনা কত কি লস করেছেন।তিনি বলেন, আমরা সবাই জানি শেখ হাসিনা ১৫ আগস্টে তার পরিবারের সবাইকে হারিয়েছেন। কিন্তু মুজিব সিনেমা দেখলে সবাই বুঝবে স্বজন হারানোর কতো কষ্টের।বিজ্ঞাপনবিদিশা বলেন, আমি ৫০০ টাকা টিকেট কেটে এই সিনেমা দেখেছি। আমার কাছে মনে হয়েছে টিকেটের মূল্য বেশি। তাহলে সাধারণ মানুষ কি এই সিনেমা দেখতে হলে আসবে না? পশ শ্রেণীর মানুষরাই শুধু দেখবে?বিদিশা এরশাদ মনে করেন, মেহনতী মানুষ থেকে শুরু করে পরবর্তী জেনারেশন যেন এই সিনেমা দেখতে পারে সেই ব্যবস্থা করা উচিত। তিনি বলেন, প্রত্যেক জেলায় জেলায় যদি সিনেমাটির দেখানো যায় তাহলে আরও ভালো হতো এবং টিকেটের মূল্য আরও কমানো উচিত।
    প্রকাশিত শুক্রবার ২০ অক্টোবর ২০২৩