• সর্বশেষ আপডেট

    মহাসড়কে বাড়ছে ঘরমুখী মানুষের ভিড়



    গাজীপুরে ঢাকা-টাঙ্গাইল ও ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কের বিভিন্ন এলাকায় ঘরমুখী মানুষের ভিড় বাড়ছে। বাড়ি ফিরতে শুরু করেছে পোশাক কারখানা ও বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের শ্রমিক, কর্মকর্তা-কর্মচারীসহ বিভিন্ন পেশার মানুষ।

    বৃহষ্পতিবার (২৮ এপ্রিল) বিকেল থেকেই মহাসড়কে মানুষের ভিড় বাড়তে শুরু করেছে।  

    এলাকাবাসী ও পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, পোশাক তৈরি কারখানা ও বিভিন্ন প্রতিষ্ঠান ঈদের ছুটি ঘোষণা করেছে। বৃহস্পতিবার বিকেল থেকেই বিভিন্ন পেশার মানুষ ঈদের ছুটি কাটাতে ফিরতে শুরু করেছেন নিজের গ্রামে। শত শত যাত্রী ট্রেনের জন্য অপেক্ষা করছেন বিভিন্ন স্টেশনে। হাতে ভারি ব্যাগসহ প্রয়োজনীয় জিনিসপত্র নিয়ে বাসের জন্য ভিড় করছেন মহাসড়কে। অনেকেই গাড়ির জন্য অপেক্ষা করছেন মহাসড়কের বিভিন্ন পয়েন্টে। অনেকে হাতে রয়েছে মা-বাবা, স্ত্রী-সন্তান ও আত্মীয়-স্বজনদের জন্য ঈদ উপহার। গাজীপুরের চান্দনা চৌরাস্তা, কোনাবাড়ী, জিরানী, টঙ্গীর স্টেশন রোড, শ্রীপুরের মাস্টারবাড়ি, মাওনা চৌরাস্তা, কালিয়াকৈরের চন্দ্রা, সফিপুরসহ বিভিন্ন এলাকায় ঘরমুখী মানুষের ভিড় দেখা গেছে। বাস, মাইক্রোবাস, প্রাইভেটকার, ট্রাক-পিকআপসহ বিভিন্ন পরিবহনে যে যেভাবে পারছে বাড়ি ফিরতে শুরু করেছে। অনেকেই পরিবারসহ গ্রামের দিকে ছুটছেন। এদিকে মহাসড়কে যানবাহন নিয়ন্ত্রণে এবং যানজট নিরসনে কাজ করছে জেলা পুলিশ ও হাইওয়ে পুলিশ।  

    পোশাক কারখানার শ্রমিক খালেক মিয়া বলেন, বৃহস্পতিবার দুপুর পর্যন্ত ডিউটি করেছি। পরে বাসায় গিয়ে মালপত্র নিয়ে গ্রামের বাড়ি রওনা হয়েছি। কোনাবাড়ী এলাকায় ঢাকা-টাঙ্গাইল মহাসড়কে বাসের জন্য দাঁড়িয়ে আছি। মানুষের অনেক ভিড়, বাসের সংখ্যা কম। যে কোন গাড়ি পেলেই চলে যাব।  

    বাবলু মিয়া নামের একজন বলেন, আমার গ্রামের বাড়ি নওগাঁ। গাজীপুরে বাসা ভাড়া থেকে রাজমিস্ত্রির কাজ করি। ঈদের আনন্দ ভাগাভাগি করে কাটাতে গ্রামের যাচ্ছি। পরিবারের সবার সাথে ঈদ করবো। গাড়ি ভাড়া অনেক বেশি। দূরপাল্লার যানবাহন কম থাকার কারণে এবং মানুষের চাপ বেশি, ফলে কিছুটা ভোগান্তি হবে।  

    গাজীপুর অঞ্চলের হাইওয়ে পুলিশ সুপার আলী আহমদ খান জানান, মহাসড়কে যানজট নিয়ে আমরা চিন্তিত না। গাজীপুরে ঢাকা-টাঙ্গাইল ও ঢাকা ময়মনসিংহ মহাসড়ক আগের চেয়ে অনেক ভালো। এছাড়া তিনটি ফ্লাইওভার খুলে দেওয়া হয়েছে। তবে বৃষ্টি এলে কিছুটা সমস্যা হতে পারে। আমরা চিন্তিত কিছু পোশাক কারখানার শ্রমিকদের বেতন নিয়ে। বৃহস্পতিবার বিকেল থেকেই বাড়ি ফেরা মানুষের ভিড় বাড়ছে মহাসড়কে। বাড়ি ফিরতে শুরু করেছে বিভিন্ন কারখানার শ্রমিক, কর্মকর্তা-কর্মচারীসহ বিভিন্ন পেশার মানুষ।

    প্রকাশিত: বুধবার ২৮ এপ্রিল ২০২২

    Post Top Ad

    Post Bottom Ad