Header Ads

parkview
  • সর্বশেষ আপডেট

    এরদোয়ানের অনুরোধে অভিযান, মারিউপোলের মসজিদের 'জিম্মিরা' মুক্ত: রাশিয়া


    ইউক্রেনের বন্দরনগরী মারিউপোলের একটি তুর্কি মসজিদে জিম্মিদশায় থাকা ব্যক্তিদের মুক্ত করা হয়েছে বলে দাবি করেছে রাশিয়া। রুশ প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র জেনারেল ইগর কোনাশেনকভ এমন দাবি করেছেন। রাশিয়ান সংবাদমাধ্যম তাসের বরাত দিয়ে এক প্রতিবেদনে এ খবর জানিয়েছে আল জাজিরা।

    ইগর কোনাশেনকভ বলেন, ‘ইউক্রেনীয় নাৎসিদের’ হাতে মারিউপোলের একটি তুর্কি মসজিদে বন্দি থাকা জিম্মিদের মুক্ত করার জন্য একটি বিশেষ অভিযান চালানো হয়েছে। তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রজব তাইয়্যেব এরদোয়ানের অনুরোধে ১৬ এপ্রিল অভিযানটি পরিচালনা করা হয়।

    তিনি বলেন, জিম্মিদের মুক্ত করে নিরাপদ স্থানে নিয়ে যাওয়া হয়েছে। এছাড়া অভিযানকালে ‘বিদেশি ভাড়াটে যোদ্ধাসহ ২৯ জঙ্গি’ নিহত হয়েছে।
    আল জাজিরার খবরে বলা হয়েছে, মার্চের রিপোর্টগুলো ইঙ্গিত করে যে বন্দি নয় বরং রাশিয়ার গোলাগুলি থেকে আশ্রয় নিতে বেশ কিছু তুর্কি নাগরিক মসজিদটিতে আশ্রয় নিয়েছিলেন। পরে মসজিদে আশ্রয় নেওয়া এসব নাগরিককে সরিয়ে নিতে মস্কোর সহায়তা চায় আঙ্কারা।

    ওই সময়ে আনাতোলিয়ায় এক সংবাদ সম্মেলনে বিষয়টি নিয়ে কথা বলেন তুর্কি পররাষ্ট্রমন্ত্রী মেভলুত কাভুসোগলু। জানান, মারিউপোলে আটকে পড়া তুর্কি নাগরিকদের সরিয়ে নিতে তিনি রাশিয়ার পররাষ্ট্রমন্ত্রী সের্গেই ল্যাভরভের কাছে সহায়তার অনুরোধ জানিয়েছেন।
    উল্লেখ্য, গত ২৪ ফেব্রুয়ারি ইউক্রেনে ‘বিশেষ সামরিক অভিযান’ শুরু করে রাশিয়া। যুক্তরাষ্ট্রসহ পশ্চিমা দেশগুলোকে এটিকে ইউক্রেনে রুশ আগ্রাসন হিসেবে বিবেচনা করে আসছে। একটি স্বাধীন দেশে এমন আগ্রাসনের জন্য মস্কোর সমালোচনা করে আসছে পশ্চিমা দেশগুলো। এ ঘটনায় রাশিয়ার ওপর সিরিজ নিষেধাজ্ঞা আরোপ করেছে যুক্তরাষ্ট্র, যুক্তরাজ্য, জাপান ও ইউরোপীয় ইউনিয়ন।

    প্রকাশিত: রবিবার ১৭ এপ্রিল ২০২২

    Post Top Ad

    Post Bottom Ad