Header Ads

parkview
  • সর্বশেষ আপডেট

    ইউক্রেন সংকট: যুক্তরাষ্ট্র-রাশিয়ার সাথে আলোচনায়:ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রী।

     

    ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রী এস জয়শঙ্কর বৃহস্পতিবার (২৪ ফেব্রুয়ারি) রাতে ইউক্রেন সংকট নিয়ে মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী অ্যান্টনি ব্লিঙ্কেন এবং রুশ পররাষ্ট্রমন্ত্রী সের্গেই লাভরভের সঙ্গে টেলিফোনে কথা বলেছেন। এক টুইট বার্তায় জয়শঙ্কর জানান, ইউক্রেনের চলমান উন্নয়ন এবং এসবের প্রভাব নিয়ে ব্লিঙ্কেনের সাথে তার আলোচনা হয়।

     অন্যদিকে রুশ পররাষ্ট্রমন্ত্রী লাভরভের সাথেও আলোচনা করেন জয়শঙ্কর। এ সময় রুশ পররাষ্ট্রমন্ত্রীকে তিনি বলেন, কূটনৈতিক রাস্তায় এগিয়ে যাওয়ায় সর্বোত্তম উপায়।জয়শঙ্কর আরও জানান, ইউক্রেনের পররাষ্ট্রমন্ত্রী কুলেবা দিমিত্রো তাকে ফোন করেন এবং বর্তমান পরিস্থিতি নিয়ে আলোচনা করেন তারা। এ সময় ভারতের পক্ষ থেকে জয়শঙ্কর বলেন, আলোচনার মাধ্যমে সমাধানে পৌঁছাতে হবে। 

    এছাড়া ইউক্রেনের ক্রমবর্ধমান পরিস্থিতি নিয়ে ইউরোপিয়ান ইউনিয়নের (ইইউ) উচ্চ প্রতিনিধি জোসেপ বোরেল এবং ব্রিটিশ পররাষ্ট্র সচিব লিজ ট্রাসের সাথেও কথা বলেছেন জয়শঙ্কর।ইউক্রেনে রুশ সামরিক অভিযান শুরুর পর থেকেই ভারত মূল পক্ষগুলির মধ্যে সংলাপের প্রয়োজনীয়তার উপর জোর দিয়ে আসছে।ভারতের পররাষ্ট্র সচিব হর্ষ বর্ধন শ্রিংলা এক মিডিয়া ব্রিফিংয়ে জানান, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র, রাশিয়া এবং ইউরোপীয় ইউনিয়নসহ সংশ্লিষ্ট সকলের সাথে যোগাযোগ করেছে ভারত সরকার।

    তিনি বলেন, ইউক্রেন নিয়ে সংশ্লিষ্ট দেশগুলোর মধ্যে আলোচনা দরকার। এই আলোচনা সহজতর করতে যদি আমরা কিছু করতে পারি, তাহলে আমরা বেশি খুশি হবো। আমরা সর্বোচ্চ চেষ্টা করবো। রাশিয়ার ওপর পশ্চিমা নিষেধাজ্ঞার বিষয়ে ভারতের পররাষ্ট্র সচিব বলেন, রাশিয়ার ওপর কিছু একতরফা নিষেধাজ্ঞা ইতিমধ্যেই বিদ্যমান ছিলো। এখন কিছু অতিরিক্ত নিষেধাজ্ঞা আরোপ করা হয়েছে।

    কিন্তু আমি যেমন বলেছি এটি একটি ক্রমবর্ধমান পরিস্থিতি এবং আমাদের দেখতে হবে যে এই নিষেধাজ্ঞাগুলো আমাদের নিজেদের স্বার্থের উপর কি ধরণের প্রভাব ফেলবে৷ স্পষ্টতই, আমাদের বুঝেশুনে এগোতে হবে কারণ যে কোনো নিষেধাজ্ঞা আমাদের বিদ্যমান সম্পর্কের উপর প্রভাব ফেলবে৷ 


    প্রকাশিত: শুক্রবার ২৫ ফেব্রুয়ারি ২০২২

    Post Top Ad

    Post Bottom Ad