Header Ads

parkview
  • সর্বশেষ আপডেট

    তাবিজের প্রভাবে কিশোরী মেয়েকে ধর্ষণ, বাবার

      


    হবিগঞ্জের চুনারুঘাটে কিশোরী মেয়েকে ধর্ষণের দায় স্বীকার করে আদালতে জবানবন্দি দিয়েছে বাবা আব্দুল খালেক।

    বৃহস্পতিবার বিকেলে হবিগঞ্জের জ্যেষ্ঠ বিচারিক হাকিম সুলতান উদ্দিন প্রধানের আদালতে জবানবন্দি রেকর্ড করা হয়। পরে আসামিকে কারাগারে পাঠানো হয়।
    মামলার তদন্ত কর্মকর্তা চুনারুঘাট থানার পরিদর্শক (তদন্ত) চম্পক দাম জানান, অভিযুক্ত খালেকের সঙ্গে কলহের জেরে তার স্ত্রী বাবার বাড়িতে চলে যান। ঐ ঘটনায় স্ত্রীকে ফিরে পেতে কয়েকজন হুজুরের কাছ থেকে তাবিজ নেয় খালেক।
     
    জবানবন্দিতে আব্দুল খালেক জানায়- তাবিজের প্রভাব পড়ে তার ওপর। এতে তার মাথা নষ্ট হয়ে যায়। এ কারণে সে ও তার বন্ধু কাদের মিলে নিজের কিশোরী মেয়েকে একাধিকবার ধর্ষণ করে।

    প্রসঙ্গত, ১ ডিসেম্বর ঐ কিশোরীকে ধর্ষণের অভিযোগ ওঠে বাবা ও তার বন্ধুর বিরুদ্ধে। ঐ ঘটনায় ৭ ডিসেম্বর বিকেলে ধর্ষণের শিকার কিশোরীর বাবা ও তার বন্ধুকে আটক করে র‍্যাব। একইদিন রাতে বাবাকে প্রধান আসামি করে মামলা করেন ভুক্তভোগী কিশোরী। এ মামলার আরেক আসামি আব্দুল কাদেরকে আগেই কারাগারে পাঠানো হয়েছে।

    প্রকাশিত: শুক্রবার ১০ ডিসেম্বর ২০২১

    Post Top Ad

    Post Bottom Ad