Header Ads

parkview
  • সর্বশেষ আপডেট

    ঢাবি শিক্ষার্থী নিহত : স্বামী আটক

      


     রাজধানীর বনানীতে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী ইলমা চৌধুরী মেঘলাকে পিটিয়ে হত্যার অভিযোগ উঠেছে। এ ঘটনায় ওই শিক্ষার্থীর স্বামী শাওন ইফতেখার আবেদীনকে আটক করা হয়েছে। মরদেহে অসংখ্য আঘাতের চিহ্ন পাওয়া গেছে বলে জানিয়েছে পুলিশ। শাওন এবং তার বাবা-মা'র বিরুদ্ধে হত্যা মামলা করেছে মেঘলার পরিবার।

    মাত্র ৬ মাস আগে কানাডা প্রবাসী ইফতেখারের সাথে বিয়ে হয় ইলমার। পরিবারের অভিযোগ, নৃত্যকলায় পড়তে না দেয়াসহ নানা কারণে ইলমাকে নির্যাতন করা হয়েছে। এমনকি পরিবারের সাথে যোগাযোগও করতে দেয়া হয়নি।

    মঙ্গলবার দুপুরে মেয়ের অসুস্থতার খবর পেয়ে রাজধানীর ইউনাইটেড হাসপাতালে ছুটে যায় এলমার পরিবার। সে সময় হাসপাতালেই ছিলেন এলমার স্বামী ইফতেখার। চিকিৎসকরা জানান, মৃত্যুর পর এলমাকে হাসপাতালে নেয়া হয়েছে।

    পরে ইউনাইটেড হাসপাতাল থেকে ইফতেখারকে আটক করে পুলিশ। আর এলমার মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়। পুলিশ জানায়, মরদেহে বেশ কিছু আঘাতের চিহ্ন রয়েছে।

    ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের নৃত্যকলা তৃতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী ছিলেন ইলমা। তার পরিবারের দাবি, ১১ ডিসেম্বর কানাডা থেকে ফিরে নানা অজুহাতে ইলমাকে নির্যাতন চালায় ইফতেখার

    প্রকাশিত: বুুধবার ১৫ ডিসেম্বর ২০২১

    Post Top Ad

    Post Bottom Ad