Header Ads

parkview
  • সর্বশেষ আপডেট

    এখনই শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান না খুললে ক্ষতিপূরণ সম্ভব নয়




    আসন্ন বাজেটে শিক্ষা খাতে জিডিজির ৫ শতাংশ বা জাতীয় বাজেটের ২৮.৬৫ শতাংশ বরাদ্দের দাবি জানিয়েছে শিক্ষক কর্মচারী ঐক্য জোট। একই সঙ্গে অবিলম্বে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের খুলে দেওয়ার দাবি জানানো হয়।

    আজ মঙ্গলবার জাতীয় প্রেস ক্লাবে এক সংবাদ সম্মেলনে এসব দাবি জানায় সংগঠনটি। 

    সংবাদ সম্মেলনে সংগঠনের চেয়ারম্যান অধ্যক্ষ মো. সেলিম ভূইয়ার সভাপতিত্বে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন সংগঠনের দপ্তর সচিব কাজী মুহাম্মদ মাইন উদ্দীন। বক্তব্য রাখেন সংগঠনের অতিরিক্ত মহাসচিব মো. জাকির হোসেন।

    লিখিত বক্তব্যে বলা হয়, 'বর্তমানে শিক্ষাব্যবস্থা মারাত্মক বিপর্যয়ের সম্মুখীন। এখনই শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খুলে না দিলে এই ক্ষতিপূরণ সম্ভব নয়। অটোপাশে মূল্যায়ন কোনো দেশেই স্বীকৃত পাবে না'।

    কাজী মাইন উদ্দীন বলেন, '২০০৪ সালে চার দলীয় জোট সরকার ক্ষমতায় থাকাকালে বেগম খালেদা জিয়া এমপিওভুক্ত শিক্ষকদের জন্য ২৫ শতাংশ এবং কর্মচারীদের ৫০ শতাংশ উৎসব ভাতা প্রদান করেছেন। বর্তমান সরকার প্রায় ১৩ বছর ক্ষমতায় থাকা সত্ত্বেও এই খাতে এক টাকাও বাড়ানো হয়নি'।

    তিনি বেতনের ৪৫ শতাংশ বাড়ি ভাড়া ও শতভাগ উৎসব ভাতার দাবি জানান। 

    তিনি বলেন, চাকরি নিরাপত্তা, আর্থিক স্বচ্ছলতা ও সামাজিক মর্যাদা না থাকায় মেধাবী শিক্ষার্থীরা শিক্ষকতা পেশায় আসতে চান না। মেধাবীদের এই পেশায় আকৃষ্ট করতে হলে চাকরি জাতীয়করণের কোনো বিকল্প নেই।



    প্রকাশিত: মঙ্গলবার ০১ জুন, ২০২১

    Post Top Ad