Header Ads

parkview
  • সর্বশেষ আপডেট

    বাগমারায় গাঁজাচাষী আব্দুল সালাম গ্রেপ্তার


    বাগমারা প্রতিনিধি:রাজশাহীর  বাগমারা থানার পুলিশ অভিযান চালিয়ে আব্দুস সালাম (৩৮) নামের এক গাঁজাচাষীকে গ্রেপ্তার করেছে। গ্রেপ্তারকৃত আব্দুস সালাম উপজেলার শুভডাঙ্গা ইউনিয়নের সুজনপালশা গ্রামের মৃত- মহির উদ্দীন প্রামানিকের ছেলে। সে দীর্ঘদিন থেকে গাঁজাচাষ করে এলাকায় যুবকদের মাঝে বিক্রি করে আসছে বলে বাগমারা থানার পুলিশ জানিয়েছেন। গ্রেপ্তারের পর পুলিশ তার পানবরজ থেকে চাষকৃত গাঁজার গাছ উদ্ধার করেছে। ওই ঘটনায় পুলিশ বাদী মাদকদ্রব্য আইনে থানায় একটি মামলা দায়ের করেছেন। গ্রেপ্তারকৃত গাঁজাচাষী আব্দুস সালামকে আদালতের মাধ্যমে জেল হাজতে পাঠানো হয়েছে বলে বাগমারা থানার ওসি আতাউর রহমান জানিয়েছেন।

    বাগমারা থানার পুলিশ জানায়, উপজেলার সুজনপালশা গ্রামের আব্দুস সালাম তার পানবরজে দীর্ঘদিন থেকে গাঁজাচাষ করে আসছে। এমন খবরের ভিত্তিত্বে সোমবার রাতে থানার উপপরির্দশক (এস্আই) সনজিব বিশ্বাস সঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে সুজনপালশা গ্রামে যায় এবং গাঁজাচাষী আব্দুস সালামকে গ্রেপ্তার করে। পুলিশের জিজ্ঞাসাবাদে আব্দুস সালাম গাঁজাচাষের কথা স্বীকার করেন। তার তথ্যের ভিত্তিতেই পুলিশ আব্দুস সালামের পানবরজ থেকে গাঁজার গাছ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসে। রাতেই পুলিশ বাদী হয়ে আব্দুস সালামকে আসামী করে থানায় মাদকদ্রব্য নিয়নন্ত্রন আইনে একটি মামলা দায়ের করেন।

    এ ব্যাাপারে যোগাযোগ করা হলে বাগমারা থানার ওসি আতাউর রহমান জানান, আব্দুস সালাম দীর্ঘদিন থেকে তার পানবরজে গঁাজাচাষ করে আসছে। সে তার চাষকৃত গাঁজা গুলো এলাকার যুবকদের মাঝে বিক্রি করে এলাকার পরিবেশ নষ্ট করছে। এমন খবর পুলিশের কাছে আসা মাত্রই সেখানে অভিযান গাঁজাচাষী আব্দুস সালামকে গ্রেপ্তার করা হয়। তার তথ্যের ভিত্তিতে পুলিশ অভিযান চালিয়ে তার পানবরজ থেকে চাষকৃত গাঁজার গাছ উদ্ধার করা হয়েছে। ওই ঘটনায় থানায় একটি মামলা দায়ের হয়েছে। গ্রেপ্তারকৃত আব্দুস সালামকে আদালতের মাধ্যমে জেল হাজতে পাঠানো হয়েছে বলে তিনি জানিয়েছেন।

    প্রকাশিত: মঙ্গলবার, ১৩ অক্টোবর, ২০২০

    Post Top Ad