Header Ads

parkview
  • সর্বশেষ আপডেট

    নোয়াখালীতে প্রেমিকার সাথে দেখা করতে এসে কলেজছাত্র খুন।

    মোঃ ইব্রাহিম নোয়াখালীঃ- নোয়াখালীর বেগমগঞ্জে প্রেমিকার সাথে দেখা করতে এসে এক কলেজছাত্র খুন হয়েছে। সোমবার  বিকেলের দিকে এ ঘটনায় নিহতের বাবা ৯ জনকে আসামি করে বেগমগঞ্জ থানায় মামলা দায়ের করেছেন।নিহত জসিম উদ্দিন (২২) লক্ষ্মীপুর সদরের চন্দ্রগঞ্জ ইউনিয়নের পশ্চিম লতিফপুরের আবুল কাশেমের ছেলে এবং কফিল উদ্দিন বিশ্ববিদ্যালয় কলেজের শিক্ষার্থী ছিল।

    পুলিশ বলছে, এ ঘটনায় তাৎক্ষণিক রওশন আক্তার নামে এক নারীকে গ্রেপ্তার করেছে। তার মেয়ে রেশমী আক্তার পিংকি মোবাইলে কল করে ডেকে নিয়ে আসে নিহত জসিমকে।

    স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, জসিমের সাথে রেশমীর ননদ পারভীন আক্তারের প্রেমের সম্পর্ক ছিল। ননদ ভাবির দ্বন্ধ ও মুক্তিপণের টাকা না পেয়ে এ হত্যাকাণ্ড ঘটে।

    এর আগে, রোববার দিবাগত রাতে উপজেলার ছয়ানি ইউনিয়নের জাহানারাবাদ গ্রামে এ যুবককে পিটিয়ে গুরুত্বর আহত করা হয়। পরে স্থানীয় এলাকাবাসী তাকে উদ্ধার করে নোয়াখালী সদর হাসপাতালে নেওয়ার পথে তার মৃত্যু হয়।

    নিহতের পরিবার সূত্রে জানা যায়, জসিমকে পিংকি কল করে নোয়াখালীর বেগমগঞ্জের আমিন বাজারে নিয়ে আসতে বলে। পরে সেখান থেকে স্থানীয় মানিক, জাবেদ, বাবুল ও রাহাতসহ কয়েকজন সন্ত্রাসী অস্ত্রের মুখে জসিমকে বেগমগঞ্জের জাহানারাবাদ গ্রামে তুলে নিয়ে যায়। এক পর্যায়ে তারা জসিমের পরিবারের কাছে ৫০ হাজার টাকা মুক্তিপণ দাবি করে। জসিমের পরিবার মুক্তিপণের টাকা দিতে অপারগতা প্রকাশ করলে, তারা ক্ষিপ্ত হয়ে জসিমকে পিটিয়ে হত্যা করে।

    বেগমগঞ্জ মডেল থানার পরিদর্শক (তদন্ত) রুহুল আমিন, ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেন। তিনি বলেন, খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে মরদেহ উদ্ধার করে। এ ঘটনায় হত্যা মামলা হয়েছে এবং রওশন আরা নামে এক নারীকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। পিংকি ওই ছাত্রকে মোবাইলে ডেকে এনেছিল। ধারণা করা হচ্ছে, তাদের মধ্যে প্রেম ছিল। পুলিশ বিষয়টি খতিয়ে দেখছে। এ বিষয়ে তদন্ত শেষে বিস্তারিত জানা যাবে।

    প্রকাশিত: সোমবার ০৭, সেপ্টেম্বার ২০২০

    Post Top Ad