Header Ads

parkview
  • সর্বশেষ আপডেট

    চীনের টাকায় আইপিএলঃআপত্তি নেই বিসিসিআইয়ের


    চার দশকেরও বেশি সময় পর এইবারই প্রথম সীমান্তে সংঘর্ষে জড়িয়েছে ভারত ও চীন। লাদাখের গালওয়ান ভ্যালিতে হওয়া সেই সংঘাতে ২০ জন ভারতীয় সৈন্য নিহত হয়েছে। এরপর থেকে ভারতজুড়ে চীনা পণ্য বর্জনের ডাক দিয়েছেন নাগরিকরা। সবার আগ্রহের কেন্দ্রে ছিল, আইপিএলের টাইটেল স্পন্সর চীনের মোবাইল নির্মাতা প্রতিষ্ঠান ভিভো’র সঙ্গে চুক্তি নিয়ে কি বলে ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ড (বিসিসিআই) সেটা নিয়ে। ভিভোর সঙ্গে ৫ বছরের স্পনসর চুক্তি রয়েছে বিসিসিআইয়ের।  বিসিসিআইয়ের কোষাধক্য অরুন ধুমাল জানিয়ে দিলেন, ভিভো’র সঙ্গে চুক্তিতে সমস্যা দেখছে না ভারতীয় বোর্ড।

    বিসিসিআই ভিভোর কাছ থেকে প্রতি বছর ৪৪০ কোটি রুপি করে পেয়ে থাকে। ৫ বছরে যার পরিমাণ ২২০০ কোটি রুপি। বিসিসিআইয়ের সঙ্গে ভিভোর চুক্তি শেষ হবে ২০২২ সালে। অরুন ধুমাল বলেন, ‘আপনি যখন আবেগের সঙ্গে কথা বলবেন, তখন আপনি যুক্তি এড়িয়ে যাবেন এটাই স্বাভাবিক।

    চীনা কোম্পানিকে সমর্থন করা এবং ভারতের ভালো হয় এ জন্য চীনা কোম্পানির সহায়তা নেওয়ার মধ্যে বিস্তর পার্থক্য রয়েছে। এটা সবাইকে বুঝতে হবে৷’
    তিনি আরও বলেন, ‘যখন আমরা চীনা সংস্থাগুলিকে তাদের পণ্য ভারতে বিক্রি করতে দিচ্ছি। তারা ভারতীয় ক্রেতাদের কাছ থেকে যে পরিমাণ অর্থ গ্রহণ করছে, তার কিছু অংশ বিসিসিআই-কে (ব্র্যান্ড প্রচার হিসাবে) দিচ্ছে। বোর্ড সেই অর্থের উপর ৪২ শতাংশ ভারত সরকারকে কর দিচ্ছে। সুতরাং, এটি ভারতের পক্ষে সমর্থন করছে, চীনের নয়।’


    প্রকাশিত: শুক্রবার, ১৯ জুন, ২০২০

    Post Top Ad