Header Ads

parkview
  • সর্বশেষ আপডেট

    ময়মনসিংহে তালাকপ্রাপ্ত স্ত্রী, স্বামীর হাতে খুন

    ময়মনসিংহের ঈশ্বরগঞ্জ উপজেলার মাইজবাগ ইউনিয়নের দত্তগ্রামে তালাকপ্রাপ্ত স্ত্রীকে স্বামী খুন করেছে। এমদাদুল হক তালাক দেওয়া লাকী আক্তার (২৩) নামে স্ত্রীকে ছুরিকাঘাত করে খুন করেছে ।   লাকী ওই গ্রামের শাহেদ আলীর মেয়ে। তিনি  ঢাকায় একটি পোশাক কারখানায় কাজ করতেন।

    মঙ্গলবার (২৮ এপ্রিল) সকালে ঈশ্বরগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোখলেছুর রহমান এ হত্যাকাণ্ডের তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

    হত্যাকাণ্ড ঘটিয়ে অভিযুক্ত এমদাদুল হক (২৬) পালিয়েছে বলে জানা গেছে।

    নিহতের বাবা শাহেদ আলী জানান, তার মেয়ের সঙ্গে তার ভাই আহাম্মদ আলীর ছেলে এমদাদুলের প্রেমের সম্পর্ক ছিল। প্রায় পাঁচ বছর আগে এমাদাদুলের সঙ্গে তার মেয়ের বিয়ে হয়। এমদাদুল ও লাকীর মাঈশা আক্তার নামে দুই বছরের একটি কন্যা সন্তানও রয়েছে। বিয়ের পর থেকে বিভিন্ন বিষয় নিয়ে এমদাদুলের সঙ্গে লাকীর ঝগড়া-বিবাদ লেগেই থাকতো। এর জেরে পাঁচ মাস আগে লাকী একতরফাভাবে এমদাদুলকে তালাক দেন। পরে লাকী ঢাকা চলে যান এবং সেখানে একটি পোশাক কারখানায় কাজ করতেন।

    চলমান করোনা পরিস্থিতিতে লাকী বাড়িতে চলে আসেন। ঘটনার সময় লাকী ঘরে তার সন্তানকে খাবার খাওয়াচ্ছিলেন। এ সময় এমদাদুল ঘরে প্রবেশ করে লাকীর বুকে ছুরিকাঘাত করে পালিয়ে যায়। এতে ঘটনাস্থলেই তার মৃত্যু হয়।

    ঈশ্বরগঞ্জ থানার ওসি আরও জানান, ঘটনার পরপরই থেকে এমদাদুল পালিয়ে যায়। তাকে আটকের চেষ্টা চলছে। এ ঘটনায় জিজ্ঞাবাদের জন্য এমদাদুলের মা-বাবাকে আটক করা হয়েছে। সেই সাথে মরদেহের ময়নাতদন্তের জন্য ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে।

    মোঃ ফজলুল হক ভুঁইয়া

    প্রকাশিত: মঙ্গলবার, ২৮ এপ্রিল, ২০২০

    Post Top Ad