• সর্বশেষ আপডেট

    থানায় ব্যবসায়ীকে পিটিয়ে ৭২ লাখ টাকার চেক লিখে নেওয়া সেই এএসপি বরখাস্ত

     

    এক মাস আগে শরীয়তপুরের জাজিরায় ব্যবসায়ীকে গভীর রাতে বাড়ি থেকে তুলে থানায় নিয়ে পিটিয়ে ৭২ লাখ টাকার চেক লিখে নেওয়ার ঘটনায় জড়িত অতিরিক্ত পুলিশ সুপার রাসেল মনিরকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়েছে।


    আজ সোমবার স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের জননিরাপত্তা বিভাগের সিনিয়র সচিব মো. মোস্তাফিজুর রহমান স্বাক্ষরিত এক প্রজ্ঞাপনে তাঁকে বরখাস্তের আদেশ দেওয়া হয়। 

    এতে বলা হয়, শৃঙ্খলা পরিপন্থী কাজের প্রমাণ পাওয়ায় সরকারি কর্মচারী বিধিমালা ২০১৮-এর ১২ (১) অনুযায় তাঁকে চাকরি থেকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়। 

    গত ৩১ মে জাজিরার নাওডোবা বাজারের ব্যবসায়ী আবু জাফর ওরফে ঠান্ডু চোকদারকে গভীর রাতে বাড়ি থেকে তুলে নেয় পুলিশ। তাঁকে পদ্মা সেতু দক্ষিণ থানায় আটকে রেখে পিটিয়ে ৭২ লাখ টাকার চেক লিখে নেওয়ার অভিযোগ ওঠে। 


    ওই ঘটনায় শরীয়তপুর পুলিশ সুপারের কাছে গত ২ জুন অভিযোগ দেন ব্যবসায়ীর ভাই। অভিযোগের ভিত্তিতে তদন্ত করে পুলিশ। তদন্তকারী কর্মকর্তারা পাঁচটি চেক উদ্ধার করে। ঘটনার সত্যতা পেয়ে প্রতিবেদন দেয় তদন্তকারী কর্মকর্তা। তাঁদের বিরুদ্ধে ভুক্তোভোগী আদালতে একটি মামলাও করেছেন। 

    এ ঘটনায় এরই মধ্যে পদ্মা সেতু দক্ষিণ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শেখ মোহাম্মদ মোস্তাফিজুর রহমান ও পরিদর্শক (তদন্ত) সুরুজ উদ্দিন আহম্মেদকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়েছে। এরপর রাষ্ট্রপতির আদেশক্রমে রাসেল মনিরকে বরখাস্ত করা হলো।  

    রাসেল মনির ২০২২ সালের নভেম্বরে শরীয়তপুর জেলা পুলিশে যোগ দেন। তিনি বিসিএস পুলিশ ক্যাডারের ৩৪ ব্যাচের কর্মকর্তা।
    প্রকাশিত সোমবার ০৩ জুলাই ২০২৩