• সর্বশেষ আপডেট

    জাপানের ওপর দিয়ে গেল উ. কোরিয়ার ক্ষেপণাস্ত্র, সতর্কতা জারি

     

    উত্তর কোরিয়ার নিক্ষেপ করা একটি ব্যালিস্টিক ক্ষেপণাস্ত্র জাপানের ওপর দিয়ে উড়ে গিয়ে মহাসাগরে পড়েছে বলে অভিযোগ করেছে জাপান সরকার। গেলো পাঁচ বছরের মধ্যে প্রথমবারের মতো জাপানের ওপর দিয়ে ক্ষেপণাস্ত্র ছুড়লো কিম প্রশাসন।

    জাপানের রাষ্ট্রীয় সংবাদমাধ্যম এনএইচকে বলছে, মঙ্গলবার (৪ অক্টোবর) ক্ষেপণাস্ত্র নিক্ষেপের পর জাপানের উত্তরাঞ্চলে কিছুক্ষণের জন্য ট্রেন চলাচল বন্ধ রাখা হয় এবং স্থানীয়দের নিরাপদ আশ্রয়ে যাওয়ার জন্য সতর্কতা জারি করা হয়। 

    দেশটির কর্মকর্তাদের ধারনা, ব্যালিস্টিক ক্ষেপণাস্ত্রটি জাপানের একান্ত অর্থনৈতিক অঞ্চলের বাইরে পড়ার আগে দেশের উত্তর-পূর্ব দিকের উপর দিয়ে উড়ে যায়। তারা বলছেন ক্ষেপণাস্ত্রটি প্রায় ২০ মিনিট ধরে উড়ে প্রায় চার হাজার ৬০০ কিলোমিটারেরও বেশি দূরত্ব অতিক্রম করে।

    এটি উত্তর জাপানের আওমোরি জেলা থেকে তিন হাজার কিলোমিটার পূর্বে সাগরের পানিতে পড়ে থাকতে পারে। তারা ধারণা করছেন এটি একটি মধ্য-পাল্লার ব্যালিস্টিক ক্ষেপণাস্ত্র বা আইআরবিএম ছিল।

    কর্মকর্তারা বলছেন ক্ষেপণাস্ত্রটি জাপান সময় আনুমানিক সকাল ৭টা ২২ মিনিটে উত্তর কোরিয়ার একটি জায়গা থেকে উৎক্ষেপণ করা হয়। জাপান সরকার দেশজুড়ে জরুরি সতর্ক ব্যবস্থার মাধ্যমে একটি সতর্কবার্তা জারি করে।
    তারা ঐ এলাকার লোকজনকে মজবুত কোনো ভবনে বা ভূগর্ভস্থ কোনো কক্ষে আশ্রয় নেয়ার জন্য আহবান জানান।

    সাইরেন বাজিয়ে উত্তর জাপানের লোকজনকে সতর্ক করা হয়। ক্ষেপণাস্ত্র নিক্ষেপ করার ২০ মিনিট পর কর্মকর্তারা জানান ক্ষেপণাস্ত্রটি প্রশান্ত মহাসাগরে পড়ে থাকতে পারে।
    এটি সপ্তম ব্যালিস্টিক ক্ষেপণাস্ত্র যা জাপানের উপর দিয়ে উড়ে গেছে এবং গেলো পাঁচ বছরের মধ্যে প্রথমবারের মতো এটি ঘটলো। 
    জাপানের প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, উত্তর কোরিয়া এ বছর এ নিয়ে ২৩ বার পরীক্ষামূলকভাবে ক্ষেপণাস্ত্র নিক্ষেপ করেছে।

    জাপানের প্রধানমন্ত্রী কিশিদা ফুমিও ক্ষেপণাস্ত্র উৎক্ষেপণের নিন্দা জানিয়েছে বলেছেন, আমরা একটি আপত্তিকর কাজ বলে এই উৎক্ষেপণের তীব্র নিন্দা জানাই। এর প্রতিক্রিয়ায় আমি নিক্ষিপ্ত ক্ষেপণাস্ত্র দ্বারা সৃষ্ট সম্ভাব্য ক্ষয়ক্ষতি পরীক্ষা করার জন্য, পুঙ্খানুপুঙ্খভাবে তথ্য সংগ্রহ ও বিশ্লেষণ করতে এবং সহযোগীদের সহযোগিতা করার জন্য কর্মকর্তাদের নির্দেশ দিয়েছি।

    সতর্কতামূলক ব্যবস্থা হিসেবে জাপানের বৃহত্তম রেল পরিচালনাকারী কোম্পানি উত্তর জাপানে বুলেট ট্রেন পরিষেবা বন্ধ করে দিয়েছে। পরিবহন কর্মকর্তারাও সারাদেশে বিমান চলাচলে সতর্কতা জারি করেছেন।

    প্রকাশিত মঙ্গলবার ০৪ অক্টোবর ২০২২