• সর্বশেষ আপডেট

    গাইবান্ধা-৫ উপনির্বাচন: জাতীয় সব প্রার্থীর ভোট বর্জন

     

    গাইবান্ধা সাঘাটা উপজেলার একটি ভোটকেন্দ্র গাইবান্ধা-৫ (ফুলছড়ি-সাঘাটা) আসনের উপনির্বাচনে আওয়ামী লীগের প্রার্থীর বিরুদ্ধে কেন্দ্র দখলসহ নানা অনিয়মের অভিযোগ তুলে চার প্রার্থী ভোট বর্জনের ঘোষণা দিয়েছেন। বুধবার (১২ অক্টোবর) দুপুর ১২টার দিকে সাঘাটা উপজেলার বগার ভিটা উচ্চ বিদ্যালয় কেন্দ্র থেকে এই ঘোষণা দেন তারা।ভোট বর্জনকারী প্রার্থীরা হলেন—জাতীয় পার্টির এ এইচ এম গোলাম শহীদ রনজু (লাঙল), বিকল্পধারা বাংলাদেশের জাহাঙ্গীর আলম (কুলা), স্বতন্ত্র প্রার্থী নাহিদুজ্জামান নিশাদ (আপেল) ও সৈয়দ মাহবুবুর রহমান (ট্রাক)।আরও পড়ুন: গাইবান্ধা-৫ উপনির্বাচন, ৪৪ কেন্দ্রে ভোট বন্ধআওয়ামী লীগের প্রার্থীদের বিরুদ্ধে কেন্দ্র দখল, জাল ভোট দেওয়া ও ইভিএমএ জালিয়াতিসহ নানা অভিযোগ তুলে ভোট বাতিলের দাবি জানিয়েছেন তারা। সেই সঙ্গে পুনরায় তফসিল ঘোষণা করে ভোটগ্রহণের দাবি জানিয়েছেন।জানা গেছে, গোপন কক্ষে একজনের পরিবর্তে আরেকজন ভোট দেওয়ার অভিযোগে ৪৪টি কেন্দ্রে ভোটগ্রহণ বন্ধ করেছে নির্বাচন কমিশন। বেলা ১১টায় এ তথ্য নিশ্চিত করেন রিটার্নিং অফিসার ও রাজশাহী আঞ্চলিক নির্বাচন কর্মকর্তা মো. সাইফুল ইসলাম।আরও পড়ুন: গাইবান্ধায় উপনির্বাচন নিয়ন্ত্রণের বাইরে চলে গেছে: সিইসিতিনি জানান, সাঘাটা ও ফুলছড়ি উপজেলার ৪৪টি কেন্দ্রে গোপন কক্ষে ইভিএমে একজনের পরিবর্তে আরেকজন ভোট দেওয়ার অভিযোগে ভোট বন্ধ রাখা হয়েছে। এদিকে গাইবান্ধা-৫ আসনের উপনির্বাচন নিয়ন্ত্রণের বাইরে চলে গেছে বলে মন্তব্য করেছেন প্রধান নির্বাচন কমিশনার (সিইসি) কাজী হাবিবুল আউয়াল। দুপুরে নির্বাচন কমিশন ভবন থেকে সিসিটিভি ক্যামেরায় নির্বাচন পর্যবেক্ষণের সময় সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে তিনি এই মন্তব্য করেন।
    প্রকাশিত বুধবার ১২ অক্টোবর ২০২২