Header Ads

parkview
  • সর্বশেষ আপডেট

    বন্ধুকে আগুন দেখাতে গিয়ে নিজেই হলেন লাশ


    বন্ধুকে আগুনের ভয়াবহতা দেখাতে দিয়েছেন ভিডিও কল। কিন্তু সেই মুহূর্তে হঠাৎ বিস্ফোরণে না ফেরার দেশে চলে গেলেন আফজাল।
    এভাবেই ঘটনার বর্ণনা করছিলেন আফজালের বন্ধু আকাশ।

    তিনি বলেন, আনুমানিক ১০টার দিকে আমাকে ইমোতে ফোন দেয়। বলে, দেখ আগুন জ্বলছে। প্রায় দশ মিনিট ধরে কথা হয় তার সঙ্গে। হঠাৎ বিস্ফোরণের শব্দ শোনা যায়। এরপরই আর তার শব্দ পাওয়া যায়নি। বেশ কয়েকবার ফোন দিয়েও কোনো সাড়া মেলেনি। রোববার সকাল থেকে খোঁজাখুঁজির পর কিছুক্ষণ আগে তার পরনের জামা দেখে লাশ শনাক্ত করা হয়।

    পরিবারে তিন ভাইয়ের মধ্যে সবার ছোট আফজাল প্রায় দুই বছর ধরে কন্টেইনার ওয়েল্ডিংয়ের কাজ করছেন এ প্রতিষ্ঠানে। তার বাড়ি সীতাকুণ্ড উপজেলায়। প্রতিদিন কাজ শেষে বাড়িতে চলে যান তিনি।

    আফজালের মেজ ভাই সজল বাংলানিউজকে বলেন, শনিবার থেকে একাধিকবার ফোন করেও কোনো সাড়া পাচ্ছিলাম না। নগরের সব জায়গায় খোঁজ নিয়েছি। পরে মর্গে এসে মরদেহের সন্ধান মিলেছে।  

    তিনি বলেন, আমার ভাইকে এভাবে হারাব কখনো ভাবিনি। তার চেহারা চেনা যাচ্ছে না। পরনের জামা দেখে চিহ্নিত করা হয়েছে।

    এদিকে, এখনও নিখোঁজ ব্যক্তিদের খুঁজে পেতে হাসপাতালে ভিড় করছেন স্বজনরা। কান্নায় ভারি হয়ে এসেছে হাসপাতালের বাতাস।

    প্রকাশিত: রবিবার ০৫ জুন ২০২২

    Post Top Ad

    Post Bottom Ad