Header Ads

parkview
  • সর্বশেষ আপডেট

    আমার জয়ে তৈমুর আলমও খুশি হবেন: আইভী

     

    বেসরকারি ফল অনুযায়ী নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশন নির্বাচনে মেয়র পদে জয়লাভ করেছেন আওয়ামী লীগ মনোনীত মেয়র প্রার্থী ডা. সেলিনা হায়াৎ আইভী। এই নিয়ে টানা তৃতীয়বার এ সিটির অভিভাবকের দায়িত্ব পাচ্ছেন তিনি।

    এ জয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার প্রতি কৃতজ্ঞতা জানিয়েছেন নৌকার এই প্রার্থী। তিনি বলেন, ‘এ জয় শেখ হাসিনার, আইভীর ও নারায়ণগঞ্জবাসীর। আমার এ জয়ে স্বতন্ত্র প্রার্থী তৈমুর আলম খন্দকারও খুশি হবেন। কারণ, চুনকার (আলী আহম্মদ চুনকা, আইভীর বাবা) মেয়ের বিজয় মানে তৈমুরের বিজয়। যতদিন বেঁচে আছি আওয়ামী লীগের ছায়াতলে থাকবো এবং নারায়ণগঞ্জবাসীর সেবা করে যাবো।’

    রবিবার (১৬ জানুয়ারি) রাতে নাসিক নির্বাচনের বেসরকারি ফল ঘোষণার পর নিজ বাড়ির সামনে সাংবাদিকদের এসব কথা বলেন সেলিনা হায়াৎ আইভী।

    তিনি বলেন, ‘নির্বাচনি ইশতেহারে তৈমুর আলম যেসব প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন, যেগুলো বাস্তবায়ন হয়নি এবং বাস্তবায়নযোগ্য সেগুলো গ্রহণ করা হবে। তৈমুর আলমসহ সবাইকে সঙ্গে নিয়ে নারায়ণগঞ্জের উন্নয়নে কাজ করবো। যারা ভোট দিয়েছেন এবং যারা দেননি, আমি সবার মেয়র। দলমতের ঊর্ধ্বে অতীতের মতো কোনও ধরনের বিভক্তি না করে সবার কল্যাণে উন্নয়ন করে যাবো। উন্নয়নের সুফল নারায়ণগঞ্জের সব মানুষ ভোগ করবেন।’

    আইভী বলেন, ‘শপথ নিয়ে চেয়ারে বসে প্রথম শীতলক্ষ্যা নদীর তীরে কদম-রসুল সেতু নির্মাণের কাজ শুরু করা হবে। প্রধানমন্ত্রীকে দিয়ে উদ্বোধন করা হবে এ কাজ। নারায়ণগঞ্জের চলমান প্রকল্পগুলো সর্বোচ্চ গুরুত্ব দিয়ে করা হবে। সবুজ-শ্যামল নারায়ণগঞ্জ গড়ে তোলা হবে।’

    নাসিক নির্বাচনে নৌকা প্রতীকে আইভী পেয়েছেন এক লাখ ৬১ হাজার ২৭৩ ভোট। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী স্বতন্ত্র মেয়র প্রার্থী তৈমুর আলম খন্দকার হাতি প্রতীকে ৯২ হাজার ১৭১ ভোট পেয়েছেন। আইভী ও তৈমুরের ভোটের ব্যবধান ৬৯ হাজার ১০২।

    প্রকাশিত: রবিবার ১৬ জানুয়ারি ২০২২

    Post Top Ad

    Post Bottom Ad