Header Ads

parkview
  • সর্বশেষ আপডেট

    হালিশহরে প্রিয়নবীর শুভাগমন ঈদে আজমের আনন্দ শোভাযাত্রা উদযাপন

      


    প্রেস বিজ্ঞপ্তিঃ দয়াময় আল্লাহতাআলার পরম রহমত হিসেবে সমগ্র মানবমন্ডলীর দোজাহানের সর্বকল্যাণ ও মুক্তি সাধনায় দুনিয়ায় প্রাণাধিক প্রিয়নবী সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লামের শুভাগমন ঈদে আজম উদ্যাপন উপলক্ষে ওয়ার্ল্ড সুন্নী মুভমেন্ট ও ওয়ার্ল্ড হিউম্যানিটি রেভুলুশন হালিশহর থানা শাখার উদ্যোগে শুক্রবার শোভাযাত্রা ও সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়।

    সংগঠনের প্রতিষ্ঠাতা আল্লামা ইমাম হায়াতের নির্দেশনায় অনুষ্ঠিত শোভাযাত্রা ও সমাবেশে সভাপতিত্ব করেন সংগঠনের কেন্দ্রীয় নেতা আল্লামা মুফতি রেজাউল কাওসার। প্রধান মেহমান হিসাবে উপস্থিত ছিলেন সংগঠনের সম্মানিত কেন্দ্রীয় নেতা আল্লামা আরেফ সারতাজ। বিশেষ অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন সংগঠনের কেন্দ্রীয় নেতা আল্লামা শেখ নঈম উদ্দিন। উক্ত শোভাযাত্রা ও সমাবেশে আরও উপস্থিত ছিলেন এডভোকেট নুসরাত আফরিন নোহা, সাবিনা সাাদাত সাব্বি, আজিজ মাবরুর, নাফিস মোবারক, আরিফ আল আহসান জুয়েল, আবদুল বারেক, লুৎফুর রহমান লিটন, হাফেজ জামসেদ, আমির হোসেন, মঈনউদ্দিন (মনি), সাহফুল ইসলাম, ইকরামুল ইসলাম(তানিম), হুসনে আরা বেগম (কুসুম), কামরুন নাজাত, ফাহমিদা আক্তার লিজা, ফাহমিদা ইফতেখার(লুবনা), ইঞ্জিনিয়ার হাজেরা আকতার মাহি, এমদাদ আহমেদ (কায়েস) ওলামায়ে কেরাম, চিন্তাবিদ, গবেষক, দার্শনিক ও শিক্ষাবিদবৃন্দ এতে উপস্থিত ছিলেন। ব্যাপক সংখ্যক ধর্মপ্রাণ জনসাধারণ এতে অংশগ্রহন করেন।
    শোভাযাত্রা বি ব্লক ঈদগাহ মাঠ থেকে শুরু করে গুরুত্বপূর্ন সড়ক পদক্ষিন করে এ ব্লক বাস স্ট্যান্ড এ এসে এক সমাবেশের পর সালাতুসালামের মাধ্যমে শেষ হয়।
    শোভাযাত্রা ও সমাবেশ বক্তাগণ বলেন, দয়াময় আল্লাহতাআলার সর্বোচ্চ রহমত রূপে সমগ্র মানবমন্ডলীর জন্য সত্যের আলো ও মুক্তির উৎস এবং সকল গুন-জ্ঞান সকল কল্যাণের মূল হিসেবে দুনিয়ায় প্রাণাধিক প্রিয়নবী সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লামের শুভাগমন দয়াময় আল্লাহতাআলাকে পাওয়ার পরম শোকরিয়া সর্বোচ্চ ঈদ ঈদে আজম।
    বক্তাগণ বলেন, দয়াময় স্রষ্টার মহান রাসুল ই সর্বসৃষ্টির জন্য স্রষ্টার আলো ও বন্ধন এবং সর্বোচ্চ অনুগ্রহ; স্রষ্টার পক্ষ থেকে মহান রাসুল ই সমগ্র মানবমন্ডলীর জন্য সকল জ্ঞান-বিজ্ঞান, সকল গুন, সকল কল্যাণের উৎস।
    মহান রাসুল ই জীবনের জ্ঞান ও মানবতার প্রাণ উল্লেখ করে নেতৃবৃন্দ বলেন, সত্য ও মানবতার মহান রাসুলের দিশা ব্যতীত স্রষ্টার বন্ধন যেমন হয় না; তেমনি মহান রাসুলের দিশা ব্যতীত মানবিক অস্তিত্ব, মানবজীবন, জীবনের রাষ্ট্র ও জীবনের দুনিয়াও হয় না। তাঁরা বলেন, মহান রাসুলের দিশা ব্যতীত জীবন ও জগত মিথ্যা-অবিচার-শোষন-সন্ত্রাস-পাশবতা-দস্যুতা-স্বৈরতার শিকারে রুদ্ধ ও ধ্বংস হয়ে যায়।
    নেতৃবৃন্দ বলেন, সকল মানুষকে নিজের জীবনের সুরক্ষা-স্বাধীনতা-মর্যাদা ও কল্যাণের স্বার্থে অবশ্যই প্রিয় রাসুল কেন্দ্রীক হতে হবে। তাঁরা বলেন, প্রিয় রাসুলের দেয়া মানবতার রাষ্ট্র ও মুক্ত জীবনের অখন্ড দুনিয়া খেলাফতে ইনসানিয়াত ছাড়া বিধ্বংস ও মৃত মানবতাকে বাঁচানোর কোন উপায় নেই।
    বক্তাগণ প্রাণাধিক প্রিয়নবী প্রদত্ত ঈমানী জীবন এবং মানবতার রাষ্ট্র ও মানবতার দুনিয়া খেলাফতে ইনসানিয়াত প্রতিষ্ঠার লক্ষ্যে সত্য ও মানবতার উৎস ঈদে আজম উদযাপন করার আহবান জানান।

    প্রকাশিত: রবিবার ১০ অক্টোবর ২০২১

    Post Top Ad

    Post Bottom Ad