Header Ads

parkview
  • সর্বশেষ আপডেট

    আইইওএম, চুয়েট স্টুডেন্ট চ্যাপ্টারের যাত্রা শুরু

    বাংলাদেশের প্রেক্ষাপটে ইন্ডাস্ট্রিয়াল ইঞ্জিনিয়ারিং ও অপারেশন ম্যানেজমেন্টে ভিন্ন মাত্রা যোগ আইইওএম, চুয়েট স্টুডেন্ট চ্যাপ্টারের যাত্রা শুরু,
    আইইওএম, চুয়েট স্টুডেন্ট চ্যাপ্টারের যাত্রা শুরু

    চট্টগ্রাম প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (চুয়েট)-এর মেকাট্রনিক্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রিয়াল ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের হাতে ধরে ঐতিহ্যবাহী ইন্ডাস্ট্রিয়াল ইঞ্জিনিয়ারিং এন্ড অপারেশন ম্যানেজমেন্ট (IEOM) সোসাইটির চুয়েট, স্টুডেন্ট চ্যাপ্টার আনুষ্ঠানিকভাবে যাত্রা শুরু করেছে। সম্প্রতি অনলাইন প্ল্যাটফর্ম জুম অ্যাপের সাহায্যে আয়োজিত এক অনুষ্ঠানের মাধ্যমে আইইওএম'র নবগঠিত ২০২১-২২ কার্যনির্বাহী কমিটি যাত্রা শুরু করে।

    এতে সভাপতি নির্বাচিত হয়েছেন আরিফুল ইসলাম আকাশ, সহ-সভাপতি সৈয়দ শাফিন হাসনাত, সাধারণ সম্পাদক মো. সুবায়ের ইসলাম, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক তাসফিয়া আমিন চৌধুরী, সাংগঠনিক সম্পাদক খন্দকার সাবরিনা সাহিম, আর্কাইভ সেক্রেটারি রিফাত আহমেদ, ইভেন্ট ম্যানেজমেন্ট সেক্রেটারি সেমন্তি বণিক, রিসার্চ এন্ড পাবলিকেশন সেক্রেটারি সরকার সাফাত মাহমুদ, ট্রেজারার মোহাম্মদ রিফাতুল ইসলাম।

    এছাড়া ডিরেক্টর অব সোস্যাল মিডিয়া রাফিয়াতুন ফেরদোউস খান, ডিরেক্টর আব প্রোগ্রাম ফাতিন ইহসান, ডিরেক্টর অব মেম্বারশিপ আইদিদ আলম, ডিরেক্টর অব কমিউনিকেশন মুহাদ্দিস হোসেন। এই স্টুডেন্টস চ্যাপ্টারের প্রধান উপদেষ্টা মনোনীত হয়েছেন মেকাট্রনিক্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রিয়াল ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের বিভাগীয় প্রধান অধ্যাপক ড. মোহাম্মদ মিজানুর রহমান এবং ফ্যাকাল্টি উপদেষ্টা মনোনীত হয়েছেন এম.আই.ই. বিভাগের প্রভাষক জনাব সঞ্জীব রয়। প্রসঙ্গত, সমগ্র বিশ্বে ইন্ডাস্ট্রিয়াল ইঞ্জিনিয়ারিং (আই.ই.) এবং অপারেশন ম্যানেজমেন্ট (ও.এম.) নিয়ে  মানুষের মধ্যে চেতনা জাগ্রতকরণ এবং তাদের মধ্যে সেতুবন্ধন তৈরি করাই  আই.ই.ও.এম. (IEOM)-এর মূল উদ্দেশ্য।


    এ উপলক্ষ্যে আয়োজিত অনুষ্ঠানে আই.ই.ও.এম'র নির্বাহী পরিচালক ও লওরেন্স টেকনোলোজিক্যাল ইউনিভার্সিটির সহযোগী অধ্যাপক ড. আহাদ আলি এবং লওরেন্স টেকনোলোজিকাল ইউনিভার্সিটির কলেজ অফ ইঞ্জিনিয়ারিংয়ের এন্টারপ্রেনিউরিয়াল প্রোগ্রাম পরিচালক মি. ডোনাল্ড রেইমার। এতে সভাপতিত্ব করেন এমআইই বিভাগের বিভাগীয় প্রধান অধ্যাপক ড. মোহাম্মদ মিজানুর রহমান।

    অনুষ্ঠানে স্টুডেন্টরা আই.ই.ও.এম. নিয়ে তাদের ভবিষ্যত পরিকল্পনা বিষয়ে একটি পাওয়ার পয়েন্ট প্রেজেন্টেশনের মাধ্যমে তুলে ধরেন এবং তাদের বিভিন্ন প্রস্তাবনা উপস্থাপন করেন। অনুষ্ঠানে ড. আহাদ আলি এবং ড. ডোনাল্ড রেইমার উভয়েই শিক্ষার্থীদের এই উদ্যোগকে সাধুবাদ জানান। শিক্ষা প্রতিষ্ঠান ও দেশীয় ইন্ডাস্ট্রিগুলোর মধ্যে সুসম্পর্ক তৈরি, শিক্ষার্থীদেরকে দিয়ে ইন্ডাস্ট্রিয়াল সমস্যার সমাধান, তাদেরকে ইন্ডাস্ট্রির পরিবেশের সাথে পরিচিতকরণ, ইন্ডাস্ট্রিয়াল ট্যুর আয়োজনসহ বিভিন্ন বিষয়ে তাদের পরামর্শ ও মতামত প্রদান করেন।

    প্রকাশিত: মঙ্গলবার, ৯ ফেব্রুয়ারি, ২০২১

    Post Top Ad

    Post Bottom Ad